Thursday, June 4, 2020

কালীগঞ্জে নববধু গণধর্ষণের ঘটনায় গ্রেফতার ৩
ঝিনাইদহ প্রতিনিধি: ঝিনাইদহের কালীগঞ্জের দাদপুর গ্রামে ৩ বন্ধু মিলে ধর্ষণ করে নববধু কেয়ার লাশ মাটিচাপা দেয় ব্যর্থ প্রেমিক মিলন ও তার সহযোগীরা। লাশ উদ্ধারের তিন মাস পর হত্যার রহস্য উদঘাটন করেছে ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ থানা পুলিশ। এ ঘটনায় হত্যাকারী তিনজনকে গ্রেফতার করা হয়েছে।
গ্রেফতারকৃতরা হলো- কালীগঞ্জের ত্রীলোচনপুর গ্রামের সলেমান হোসেনের ছেলে মিলন হোসেন (২৬), একই গ্রামের আসাদুল ইসলামের ছেলে ইসরাফিল (২৫) ও আজগর আলীর ছেলে আজিম (২৬)। আসামিরা আদালতে হত্যার দায় স্বীকার করে স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দি দিয়েছে।
জানা যায়, চলতি বছরের ১৩ মার্চ ঝিনাইদহের কালীগঞ্জ উপজেলার দাদপুর গ্রামের একটি রাস্তার পাশ থেকে চুলের ক্লীপ, মাথার চুল ও একটি স্যান্ডেল পাওয়া যায়। যার সুত্র ধরে ওই গ্রামের মাঠের মধ্যে থেকে কলাগাছ ও গাছের পাতার নিচে মাটিতে পুঁতে রাখা গলিত লাশ উদ্ধার করা হয়। পরে লাশটি কালীগঞ্জ উপজেলার ত্রীলোচনপুর গ্রামের আব্দুস সামাদের মেয়ে কেয়া খাতুনের বলে পরিচয় শনাক্ত করে নিহতের স্বজনরা। যিনি ১৭ দিন ধরে নিখোঁজ ছিলেন।
ঝিনাইদহের পুলিশ সুপার মো. হাসানুজ্জামান বলেন, লাশ উদ্ধারের পর হত্যার মোটিভ উদ্ধার ও হত্যাকারীদের গ্রেফতারে তদন্ত শুরু করে পুলিশ। ঘটনাস্থল থেকে হত্যাকারীদের কোনপ্রকার আলামত না পেয়ে ক্লু-লেস এ মামলার তদন্তে কিছুটা বেগ পেতে হয়। পরে কেয়ার বিয়ের আগে ও পরে নানা বিষয়ে পর্যালোচনা শুরু করা হয়।
এতে জানা যায়, নিহত কেয়ার সাথে ৩ বছর আগে থেকে একই গ্রামের সলেমানের ছেলে মিলন হোসেনের সাথে প্রেমের সম্পর্ক ছিলো। তবে পরিবার থেকে একই উপজেলার নরেন্দ্রপুর গ্রামের মাইক্রো চালক সাবজাল হোসেনের সাথে কেয়াকে বিয়ে দেয়। কেয়ার বিয়ে দেয়ার পর মিলন হোসেন প্রেমে ব্যর্থ হয়ে এ ঘটনা ঘটাতে পারে এমন সন্দেহে চুয়াডাঙ্গার জীবননগর এলাকায় ছদ্দবেশে অভিযান শুরু করে পুলিশ।
কয়েকদিনের অভিযানের ১৬ মার্চ জীবননগরের হাসাদাহ এলাকা থেকে মিলনকে আটক করা হয়। দীর্ঘ জিজ্ঞাসাবাদের এক পর্যায়ে মিলন হত্যার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে। পরে সে আদালতে স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্ধী প্রদান করে এবং তার সাথে ইসরাফিল ও আজিম জড়িত এমন তথ্য প্রদান করে।
মিলন গ্রেফতার হওয়ার পর আসামি ইসরাফিল ও আজিম গা ঢাকা দিয়ে বিভিন্ন এলাকায় অবস্থান করতে থাকে। তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহার করে ইসরাফিলকে ২৭ মার্চ গ্রেফতার করলে সেও হত্যার সাথে জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে। আলাদা জিজ্ঞাসাবাদে ২ জনের বক্তব্য একই রকম হওয়ায় ইসরাফিল হত্যার সাথে জড়িত থামির বিষয়টি পুলিশ নিশ্চিত হয়। সেই সাথে আজিমও জড়িত সেই বিষয়টিও নিশ্চিত হওয়া যায়।
দুই জনকে গ্রেফতার করা হলেও ৩য় আসামি আজিমকে গ্রেফতার করা যাচ্ছিল না। দীর্ঘ প্রায় ৩ মাসের চেষ্টায় গত মঙ্গলবার (২ জুন) কালীগঞ্জের বালিয়াডাঙ্গা এলাকা থেকে আজিমকে গ্রেফতার করা হয়। সেও হত্যার দায় স্বীকার করে আদালতে স্বীকারোক্তিমুলক জবানবন্দি দিয়েছে।
হত্যার দিনের ঘটনার বিষয়ে পুলিশ সুপার বলেন, আসামিদের আলাদা আলাদা জিজ্ঞাসাবাদে তারা জানিয়েছেন, ঘটনার দিন ২৬ ফেব্রুয়ারি রাত ৮ টার দিকে কেয়া খাতুনকে ব্যার্থ প্রেমিক মিলন তার বাবার বাড়ি থেকে ফুসলিয়ে ডেকে নিয়ে যায়। বাড়ি থেকে ২ কিলোমিটার দুরের মাঠের মধ্যে নিয়ে গিয়ে প্রথমে মিলন তাকে ধর্ষণ করে।
পরে একে একে আজিম ও ইসরাফিল তাকে ধর্ষণ করে। ধর্ষণের পর মিলন বাশের লাঠি দিয়ে কেয়ার মাথায় আঘাত করে হত্যা করে। সেখানে পাশের বাড়ি থেকে একটি কোদাল এনে রাস্তার পাশে মাটি চাপা দিয়ে কলাগাছ ও কলাগাছের পাতা দিয়ে ঢেকে রেখে পালিয়ে যায়। প্রেমে ব্যার্থ হয়েই মিলন অন্য সহযোগীদের নিয়ে এ ঘটনা ঘটিয়েছে।

Tuesday, June 2, 2020

দর্শনায় সাংবাদিকের ওপর হামলা মামলার আসামিরা প্রকাশ্যে ঘুরছেঃ পুলিশের ভূমিকা নিয়ে প্রশ্ন

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার দর্শনা থানাধীন কুড়ুলগাছি গ্রামের সাংবাদিক খালেকুজ্জামানের ওপর হামলা মামলার আসামিরা প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়ালেও তাঁদের গ্রেপ্তার করছে না পুলিশ। মামলার বাদী খালেকুজ্জামানের শ্বশুর নজরুল ইসলাম   অভিযোগ করে বলেন গত সোমবার (২৫মে) আমার জামাই খালেকুজ্জামান নিজ মহল্লার কুড়ুলগাছি মাঠ পাড়া জামে মসজিদে ঈদুল ফিতরের নামাজ আদায় শেষে বাড়ী ফিরছিলেন।এসময় তাকে হত্যার উদ্দেশ্যে পূর্ব পরিকল্পিত ভাবে লোহার রড,হাঁসুয়া ও বাঁশের লাঠি নিয়ে মুদি দোকানের দেয়ালের আড়ালে ওতপেতে বসে ছিল একই মহল্লার মৃত আত্তাব আলীর ছেলে আঃ গণি  ও তার ৩ছেলে নওশাদ,হাবিল,কাবিল এবং আঃগণির স্ত্রী কুলসুম।খালেকুজ্জামান আসামিদের মুদি দোকানের সামনে পৌছানোর সাথে সাথে আঃ গণির হুকুমে চতুর্দিকে ঘিরে তার গতি রোধ করে তাকে খুন করার উদ্দেশ্য লোহার রড,হাঁসুয়া ও বাঁশের লাঠি দিয়ে এলোপাতাড়ি মার শুরু করে ।এসময় খালেকুজ্জামানের মাথা লক্ষ করে লোহার শাবল দিয়ে আঘাত করে গণির ছেলে নওশাদ।হাবিল, কাবিল ও গণির স্ত্রী কুলসুমসহ সকলেই শরীরের বিভিন্ন স্হানে বেধড়ক পিটিয়ে মৃত্যু নিশ্চিত মনে করে রাস্তায় ফেলে চলে যায়। পরে স্হানীয়রা এসে তাকে উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য দামুড়হুদা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করান। ঘটনার পরের দিন মঙ্গলবার(২৬মে) খালেকুজ্জামানের শশুর নজরুল ইসলাম বাদী হয়ে দর্শনা থানায় মামলা দায়ের করেন। ৫জনকে আসামি করে মামলা রেকর্ডভুক্ত করলেও আসামিদের গ্রেপ্তারে তৎপর হয়নি পুলিশ। নজরুল ইসলাম বলেন, সাত দিন পেরিয়ে গেলেও আসামীদের ধরার ব্যাপারে পুলিশের কোন  ভূমিকা না থাকায়  আসামিরা প্রকাশ্যে ঘুরে বেড়াচ্ছেন। তিনি (নজরুল ইসলাম) দ্রুত আসামিদের গ্রেপ্তারের দাবি জানিয়েছেন। পাশাপাশি মামলাটি সঠিকভাবে তদন্তের জন্য প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণের ও দাবিও জানিয়েছেন।

এ ব্যাপারে মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এস আই রাজিব হাসানের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন,আসামীদের গ্রেফতার করতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে,  রাতেই অভিযান চালিয়ে মামলার সাথে জড়িতদের গ্রেফতার করা হবে  আশ্বাস দেন তদন্তকারী কর্মকর্তা।
দামুড়হুদার চাকুলিয়ায় সড়ক দূর্ঘটনায় কার্পাসডাঙ্গার কালাম খাবলী নিহত

নিজস্ব প্রতিবেদক  : দামুড়হুদা উপজেলার কুড়ুলগাছি ইউনিয়নের চাকুলিয়া - ঠাকুরপুর সড়কে কার্পাসডাঙ্গার পরিচিত মুখ ব্যবসায়ী মোঃ কালাম খাবলী ( ৫৩) সড়ক দূর্ঘটনায় নিহত হয়েছে। প্রত্যক্ষদর্শী ও পারিবারিক সুত্রে জানাগেছে,  সোমবার (১ জুন) সন্ধ্যা ৭ টার দিকে কালাম খাবলী নিজ মোটরসাইকেলযোগে ব্যবসায়ী কাজ সেরে কার্পাসডাঙ্গার দিকে রওনা হয়। এসময় বিপরীত দিক থেকে একটি করিমন চাকুলিয়া গ্রামে যাচ্ছিলো। এসময় করিমনের সাথে মোটরসাইকেলের মুখোমুখি ধাক্কা লাগে। ধাক্কা লাগার কারনে কালাম খাবলী রাস্তার উপরে পড়ে যায়। রক্তাক্ত আহত অবস্থায় স্থানীয়রা উদ্ধার করে রাস্তার পাশে রাখে। পরে স্থানীয়রা কালাম খাবলীর বাড়িতে খবর দিলে পরিবারের লোকজন ঘটনাস্থলে গিয়ে কালাম খাবলীকে দ্রুত উদ্ধার করে চিকিৎসার জন্য চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে মাইক্রোযোগে নিয়ে যায় চিকিৎসার জন্য। হাসপাতলে নিয়ে যাবার পর ইমার্জেন্সিতে প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে ওয়ার্ডে নিয়ে যাবার পরেই তিনি সাড়ে ৯ টার দিকে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করে বলে জানান পরিবারের লোকজন। প্রচুর রক্ত ক্ষরণে তার মৃত্যুর কারন বলে জানান পরিবারের লোকজন। । ২ সন্তানের জনক কালাম খাবলী কার্পাসডাঙ্গার খাবলী পাড়ার মৃত আলী খাবলীর ছেলে। তিনি বিলে মাছের ব্যবসা ছাড়া বিভিন্ন ব্যবসার সাথে জড়িত। কালাম খাবলী ২০১১ ও ২০১৬ সালে কার্পাসডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচনে ১ নং ওয়ার্ডের সদস্য পদে প্রতিদ্বন্দ্বী করেছিলেন। আগামী কাল মৃতব্যক্তির জানাযা শেষে দাফনকার্য সম্পন্ন করা হবে বলে মৃত ব্যক্তির পারিবারিক সুত্রে জানাগেছে।



Monday, June 1, 2020

পরিস্থিতির অবনতি হলে কঠিন সিদ্ধান্ত নেবে সরকার’
অসচেতনতা এবং স্বাস্থ্যবিধি না মানায় পরিস্থিতির যদি আরো অবনতি হয়, তাহলে জনস্বার্থে সরকার আবারো কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।
সোমবার দুপুরে রাজধানীর সংসদ ভবন এলাকায় নিজের সরকারি বাসভবনে সংবাদ সম্মেলনে এ কথা বলেন তিনি।
ওবায়দুল কাদের বলেন, ‘আমি মালিকদের স্বাস্থ্য বিধি এবং শর্ত মেনে গাড়ি চালানোর অনুরোধ করছি। পাশাপাশি আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীসহ ভিজিলেন্স টিম, মোবাইল কোর্টসহ টার্মিনাল কর্তৃপক্ষকে অর্ধেক আসন খালি রাখা, বর্ধিত ৬০ শতাংশ ভাড়া এবং স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা ও মাস্ক পরিধানের বিষয় তদারকির আহ্বান জানাচ্ছি। পাশাপাশি যাত্রী সাধারণকে অনুরোধ করছি আপনারা অতিরিক্ত যাত্রী হবেন না। অর্ধেক আসন খালি রাখুন। শারীরিক দূরত্ব বজায় রেখে টিকিট কাটুন। নিজে সংক্রমণ থেকে বাঁচুন অপরকে বাঁচান।’
তি‌নি ব‌লেন, ‘হুড়োহুড়ি বাড়তি যাত্রী হওয়া স্বাস্থ্য বিধি না মেনে দেশকে আরো সংকটে নিমজ্জিত করতে পারে। আমি পরিবহন মালিক ও শ্রমিকদের সংকটে মানবিকতার দৃষ্টান্ত স্থাপনের অনুরোধ জানাচ্ছি। আমাদের অসচেতনতা এবং স্বাস্থ্যবিধি না মানায় পরিস্থিতির যদি আরো অবনতি হয় তাহলে জনস্বার্থে সরকার আবারো কঠিন সিদ্ধান্ত নিতে বাধ্য হবে।’
ওবায়দুল কা‌দের বলেন, ‘পবিত্র মক্কা-মদিনা-মসজিদুল আকসাও ধীরে ধীরে মুসল্লীদের জন্য ছেড়ে দেয়া হচ্ছে। জীবনের পাশাপাশি জীবিকা দীর্ঘমেয়াদি বন্ধ থাকলে জীবনের গতিপথে নেমে আসবে স্তব্ধতা। অর্থনীতি হয়ে পড়বে স্থবির। তাই পরিবর্তিত প্রেক্ষাপটে বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে আমাদের ভারসাম্যপূর্ণ অবস্থান বেছে নিতে হবে। এ প্রেক্ষাপটে আমাদের অনিবার্য প্রয়োজন সচেতনতা ও স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলা। নিজের সুরক্ষা প্রকারন্তে পরিবার, সমাজ ও সহকর্মীর সুরক্ষা দেবে। তাই প্রত্যেকে নিজ নিজ অবস্থানে সচেতন ও সুরক্ষিত থাকি ঘরকে করে তৈরি সুরক্ষার দুর্গ।’ প্রধানমন্ত্রীল নেতৃত্বের প্রশংসা করে তিনি বলেন, ‘এমন সাহসী নেতৃত্ব আমাদের সকলের পাশে আছেন, তিনি দেশরত্ন শেখ হাসিনা। তার প্রতি আস্থা রাখুন ভরসা রাখুন।’
মাস্ক না পরলে লাখ টাকা জরিমানা, ৬ মাসের জেল
করোনাভাইরাস সংক্রমণের মধ্যে বাড়ির বাইরে চলাচলরত অবস্থায় ব্যক্তিকে অবশ্যই মাস্ক পরতে হবে এবং অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি মনে চলতে হবে। কেউ এই আইন অমান্য করলে তার বিরুদ্ধে সংক্রমণ আইন–২০১৮ অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শনিবার রাতে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (প্রশাসন) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানার স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, বাইরে চলাচলের ক্ষেত্রে সবসময় মাস্ক পরিধানসহ অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলতে হবে। তা নাহলে সংক্রামক রোগ (প্রতিরোধ, নিয়ন্ত্রণ ও নির্মূল) আইন, ২০১৮ এর ধারা ২৪ (১), (২) ও ধারা ২৫ (১) ও (২) অনুয়ায়ী ব্যবস্থা নেয়া হবে। আর এই আইন বাস্তবায়ন করবে জেলা প্রশাসন ও যথাযথ কর্তৃপক্ষ।

নতুন এই ঘোষণা অনুযায়ী, মাস্ক না পরে বা অন্যান্য স্বাস্থ্যবিধি না মেনে বাইরে চলাচল করলে ব্যক্তিকে সর্বোচ্চ ৬ মাসের কারাদণ্ড বা ১ লাখ টাকা জরিমানা করা যাবে। অবশ্য ঘোষণায় এই আইন জেলা প্রশাসক ও যথাযথ কর্তৃপক্ষকে সতর্কতার সঙ্গে বাস্তবায়ন করতে বলা হয়েছে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর সর্বশেষ ৬ মে একটি নির্দেশনা জারি করে। সেই নির্দেশনায় এই পরিবর্তনগুলো যুক্ত করা হয়েছে।

ধারা অনুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে। জেলা প্রশাসক বা যথাযথ কর্তৃপক্ষ যদি মনে করেন, সংক্রমণ আইনের ২৪ (১, ২) ধারায় অপরাধ সংঘটন করলে সর্বোচ্চ সাজা ছয় মাসের কারাদণ্ড বা এক লাখ টাকা জরিমানা।

এ ছাড়া নির্দেশনায় রাত আটটা থেকে সকাল ছয়টা পর্যন্ত অতিপ্রয়োজন ছাড়া ঘরের বাইরে না যাওয়ার ব্যাপারেও নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

সূত্র,বাংলাদেশ জার্নাল
দেশের ১৩ অঞ্চলে ঝড় বৃষ্টির পূর্বাভাস
দেশের ১৩ অঞ্চলের ওপর দিয়ে ৪৫ থেকে ৬০ কিলোমিটার বেগে ঝড়-বৃষ্টি বয়ে যেতে পারে। এসব অঞ্চলের নদীবন্দরকে ১ নম্বর সতর্কতা সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।
সোমবার ভোর সাড়ে ৫টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত দেশের অভ্যন্তরীণ নদীবন্দরের আবহাওয়ার পূর্বাভাসে এমন তথ্য জানায় আবহাওয়া অধিদপ্তর।
এতে বলা হয়, রংপুর, রাজশাহী, পাবনা, বগুড়া, টাঙ্গাইল, ময়মনসিংহ, সিলেট, ঢাকা, কুমিল্লা, ফরিদপুর, যশোর, কুষ্টিয়া ও খুলনা অঞ্চলের ওপর দিয়ে পশ্চিম/উত্তরপশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫ থেকে ৬০ কিলোমিটার বেগে অস্থায়ীভাবে দমকা/ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি/বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। এসব এলাকার নদীবন্দরকে ১ নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।
২৪ ঘণ্টায় ২৩৮১ জন শনাক্ত, ২২ জনের মৃত্যু
করোনাভাইরাসে বাংলাদেশে প্রতিনিয়ত বাড়ছে আক্রান্ত ও মৃত্যুর সংখ্যা। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে আরো ২৩৮১ জনের শরীরে করোনার সংক্রমণ পাওয়া গেছে। এ নিয়ে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ৪৯,৫৩৪। এ সময়ের মধ্যে মারা গেছেন আরো ২১ জন। সব মিলিয়ে মৃতের সংখ্যা ৬৭২।
সোমবার দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের করোনাভাইরাস সংক্রান্ত নিয়মিত হেলথ বুলেটিনে এ তথ্য জানানো হয়। অনলাইনে বুলেটিন উপস্থাপন করেন স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা। তিনি বলেন, যারা দেশবাসীর পাশে বিভিন্ন দাঁড়িয়েছেন তাদের সবার প্রতি আমরা কৃতজ্ঞ।

Sunday, May 31, 2020

তৈরি হচ্ছে ১৩ থেকে ১৯টি নতুন ভয়াবহ ঝড়
আটলান্টিক সংলগ্ন অঞ্চলে প্রায় ১৩ থেকে ১৯টি নতুন ঝড় তৈরি হচ্ছে বলে জানা গেছে। দ্য সান ও ইউএসএ টুডের প্রতিবেদনে এই তথ্য পাওয়া গেছে।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ন্যাশানাল ওসিয়ান অ্যান্ড অ্যাটমোস্ফিয়ার এডমিনিস্ট্রেশন (এনওএএ)। এনওএএ জানায়, এই ঝড়ের মধ্যে রয়েছে বেশ কয়েকটি ঘূর্ণিঝড়ও। ওই ঝড়গুলির গতিবেগ ঘণ্টায় ৩৯ মাইল বা তার বেশিও হতে পারে বলে অনুমান করা হচ্ছে। তবে ওই ঝড়ের গতিবেগ ঘণ্টায় ৭৪ মাইলে পৌছানোর পরে তা ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হতে পারে।

৬-১০টি ঝড়ের মধ্যে বেশ কয়েকটি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ হতে পারে বলেও জানানো হয়েছে। পাশপাশি হাওয়ার গতিবেগ সেক্ষেত্রে ঘণ্টায় ১১১ মাইল (১৭৮ কিলোমিটার) বা তার বেশি হতে পারে বলে জানানো হয়েছে।



এছাড়াও আবহাওয়ার আরও বেশ কিছু পরিবর্তনের বিষয়ে জানিয়েছেন ওই সংস্থার এক কর্মকর্তা। শুধুমাত্র আটলান্টিকই নয় তারই সঙ্গে ক্যারিবিয়ান সমুদ্র সংলগ্ন এলাকাতেও ঝড় হতে পারে বলেও জানিয়েছেন অনেকে।
১০৪ প্রতিষ্ঠানের কেউ পাস করেনি
এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় এবার কেউ পাস করেনি এমন প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ১০৪টি। আজ রবিবার (৩১ মে) ঘোষিত ফল থেকে এ তথ্য জানা গেছে।
সকাল সাড়ে ১০টায় গণভবনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে এবারের এসএসসি ও সমমানের পরীক্ষা ফলের অনুলিপি তুলে দেওয়া হয়। এর পর সেখানে ফলের বিভিন্ন দিক ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে তুলে ধরেন শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি।
শিক্ষামন্ত্রী জানান, এ বছর শূন্য শতাংশ পাস করা প্রতিষ্ঠানের সংখ্যা ১০৪টি, গত বছর যা ছিল ১০৭টি। কমেছে তিনটি। এটি  ভালো খবর। শূন্য শতাংশ পাস প্রতিষ্ঠানগুলোর বিষয়ে শিক্ষামন্ত্রী দীপু মনি বলেন, ওই সব প্রতিষ্ঠান কেন ফল খারাপ করল সেসব বিষয় খতিয়ে দেখে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।
শিক্ষামন্ত্রী আরো জানান, এবার ৯টি সাধারণ শিক্ষা বোর্ড, মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে গড়ে ৮২ দশমিক ৮৭ শতাংশ শিক্ষার্থী পাস করেছে। সব বোর্ডে পরীক্ষায় অংশ নিয়েছেন মোট ২০ লাখ ৪০ হাজার ২৮ জন শিক্ষার্থী। যার মধ্যে ১৬ লাখ ৯০ হাজার ৫২৩ জন শিক্ষার্থী পাস করেছে।
দীপু মনি বলেন, এসএসসির সাধারণ শিক্ষা বোর্ডের মধ্যে ঢাকা বোর্ডে পাসের হার ৮২.৩৪ শতাংশ, রাজশাহী বোর্ডে ৯০.৩৭ শতাংশ, কুমিল্লা বোর্ডে ৮৫.২২ শতাংশ, যশোর বোর্ডে ৮৭.৩১ শতাংশ, চট্টগ্রাম বোর্ডে ৮৪.৭৫ শতাংশ, বরিশাল বোর্ডে ৭৯.৭০ শতাংশ, সিলেট বোর্ডে ৭৮.৭৯ শতাংশ, দিনাজপুর বোর্ডে ৮২.৭৩ শতাংশ, ময়মনসিংহ বোর্ডে ৮০.১৩ শতাংশ।
এছাড়া মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ডে পাস করেছে ৮২.৫১ শতাংশ এবং কারিগরি শিক্ষা বোর্ডে ৭২.৭০ শতাংশ শিক্ষার্থী পাস করেছে বলে উল্লেখ করেন শিক্ষামন্ত্রী

Friday, May 29, 2020

আজও দেশের ১৮ অঞ্চলে কালবৈশাখীর আশঙ্কা
আজও দেশের ১৮টি অঞ্চলে কালবৈশাখী ঝড়ের আশঙ্কা রয়েছে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর। এসব অঞ্চলের নদীবন্দরকে ১ নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। শুক্রবার দুপুর ১টা পর্যন্ত দেশের অভ্যন্তরীণ নদীবন্দরের পূর্বাভাসে এসব তথ্য জানিয়েছে আবহাওয়াবিদরা।
পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, রাজশাহী, রংপুর, পাবনা, বগুড়া, টাঙ্গাইল, ময়মনসিংহ, ঢাকা, ফরিদপুর, যশোর, কুষ্টিয়া, খুলনা, বরিশাল, পটুয়াখালী, নোয়াখালী, কুমিল্লা, চট্টগ্রাম, কক্সবাজার ও সিলেট অঞ্চলের ওপর দিয়ে পশ্চিম/উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৪৫ থেকে ৬০ কিলোমিটার বেগে অস্থায়ীভাবে বৃষ্টি/বজ্রবৃষ্টিসহ ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। এসব এলাকার নদীবন্দরকে ১ নম্বর সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।
অন্যদিকে সকাল ৭টা থেকে দুপুর ১টা পর্যন্ত সময়ে ঢাকা ও পার্শ্ববর্তী এলাকার পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, আকাশ অস্থায়ীভাবে আংশিক মেঘলা থাকতে পারে। বৃষ্টি, বজ্রবৃষ্টি হতে পারে। দক্ষিণ/দক্ষিণ-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ১০ থেকে ১৫ কিলোমিটার বেগে বাতাস বইতে পারে। দিনের তাপমাত্রা প্রায়ই অপরিবর্তিত থাকতে পারে।
গতকাল বৃহস্পতিবার আবহাওয়া অফিস জানায়, উত্তর বঙ্গোপসাগর এলাকায় বায়ুচাপের তারতম্যের আধিক্য বিরাজ করছে। এর প্রভাবে উত্তর বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকা এবং সমুদ্রবন্দরের ওপর দিয়ে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে।
চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, মংলা ও পায়রা সমুদ্রবন্দরকে ৩ নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত দেখানো হয়েছে। উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারকে পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি থেকে সাবধানে চলাচল করতে হবে। এই সতর্কতা আজ শুক্রবারও বহাল রেখেছে আবহাওয়া অফিস।
একদিনে সর্বোচ্চ আক্রান্ত ২৫২৩, মৃত্যু ২৩
দেশে গত ২৪ ঘণ্টায় মহামারি করোনাভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্ত হয়ে আরও ২৩ জন মারা গেছেন। এতে ভাইরাসটিতে মৃতের সংখ্যা দাঁড়াল ৫৮২ জনে। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হিসেবে শনাক্ত হয়েছেন ২ হাজার ৫২৩ জন। এতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৪২ হাজার ৮৪৪।
শুক্রবার (২৯ মে) দুপুরে স্বাস্থ্য অধিদফতরের করোনাভাইরাস বিষয়ক নিয়মিত হেলথ বুলেটিনে এ তথ্য জানানো হয়। বুলেটিন পড়েন অধিদফতরের অতিরিক্ত মহাপরিচালক (মহাপরিচালকের দায়িত্বপ্রাপ্ত) অধ্যাপক ডা. নাসিমা সুলতানা।
বরাবরের মতোই বুলেটিনে করোনাভাইরাস সংক্রমণের ঝুঁকি এড়াতে সবাইকে স্বাস্থ্য অধিদফতর ও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার পরামর্শ-নির্দেশনা মেনে চলার অনুরোধ জানানো হয়।
চীনের উহান শহর থেকে গত ডিসেম্বরে ছড়ানো করোনাভাইরাসের প্রকোপে গোটা বিশ্ব মৃত্যুপুরীতে পরিণত হয়েছে। এ ভাইরাসে বিশ্বজুড়ে এখন পর্যন্ত আক্রান্তের সংখ্যা প্রায় সোয়া ৫৯ লাখে দাঁড়িয়েছে। মৃতের সংখ্যা ছাড়িয়েছে তিন লাখ ৬২ হাজার। তবে ২৬ লাখের মতো রোগী ইতোমধ্যে সুস্থ হয়েছেন। বাংলাদেশে করোনাভাইরাস প্রথম শনাক্ত হয় গত ৮ মার্চ।
পুকুরের পাশে গাছে ঝুলন্ত মায়ের লাশ, পানিতে শিশুর
নোয়াখালী সদর উপজেলা থেকে মা ও শিশুর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। এ ঘটনায় নিহতের স্বামী ও শ্বশুরবাড়ির সবাই পলাতক রয়েছে। শুক্রবার (২৯ মে) সকাল ১১টার দিকে উপজেলার নোয়াখালী ইউনিয়নের ৬ং ওয়ার্ডের সল্লা গ্রামের মুন্না সাহেবের বাড়ির পুকুর পাড়ের একটি গাছ থেকে গলায় ফাঁস দেওয়া অবস্থায় বিবি মরিয়ম (২৬) আর পাশের একটি পুকুর থেকে আড়াই মাস বয়সী শিশু মাইমুনা আক্তারের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।
নিহতের স্বামী আকবর আলী বাবর (৩০) কৃষি কাজ করেন। তিনি একই এলাকার মৃত সোলমানের ছেলে।
নিহত বিবি মরিয়ম নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলার চর এলাহী ইউনিয়নের ৮নং ওয়ার্ডের গাঙচিল গ্রামের আবুল কাসেম মোল্লার মেয়ে এবং নিহত গৃহবধূ ৩ সন্তানের জননী ছিলেন।
নিহতের ভাই আব্দুল করিম জানান, গত কয়েক মাস ধরে নিহতের স্বামী বাবার বাড়ির পাশের বাড়ির একটি কুমারী মেয়ের সাথে পরকীয়ায় জড়িয়ে পড়েন। এ নিয়ে কয়েকবার সামাজিকভাবে সালিশ হয়েছে। কিন্তু পরকীয়ার জের ধরে তাদের সংসারে প্রায় ঝগড়া বিবাধ চলছিল। এ সূত্র ধরে তারা আমার বোনকে গভীর রাতে হত্যা করে গাছে ঝুলিয়ে দেয় এবং শিশু ভাগ্নিকে হত্যা করে পুকুরে ফেলে দেওয়া হয়। সদর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) টমাস বড়ুয়া জানান, তাৎক্ষণিকভাবে মৃত্যুর সঠিক কোন কারণ জানা যায়নি। তবে নিহতের পরিবার দাবি করছে, পরকিয়ার জের ধরে যৌতুকের জন্য নিহতের স্বামী এবং তার পরিবার এ হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে। মরদেহ দু’টি উদ্ধার করে ময়না-তদন্তের জন্য নোয়াখালী সদর হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হচ্ছে। এটি হত্যা না আত্মহত্যা ময়না-তদন্তের প্রতিবেদন হাতে এলে বিস্তারিত বলা যাবে। এ বিষয়ে তদন্ত চলছে বলেও জানান পুলিশের এ কর্মকর্তা।

Thursday, May 28, 2020

দামুড়হুদার কার্পাসডাঙ্গায় আ,লীগের নেতৃবৃন্দের সাথে ইউপি চেয়ারম্যানের মতবিনিময়সভা অনুষ্ঠিত

নিজস্ব প্রতিবেদক  :--  দামুড়হুদার কার্পাসডাঙ্গায় ওয়ার্ড আ,লীগের সভাপতি ও সেক্রেটারীর সাথে মতবিনিময় করলেন ইউপি চেয়ারম্যান মো: খলিলুর রহমান ভুট্রো বৃহস্পতিবার (২৮ মে) বেলা ১১ টায় কার্পাসডাঙ্গা ইউনিয়ন পরিষদ হলরুমে এ মতবিনিময়সভা অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় ইউপি চেয়ারম্যান বলেন সারা বিশ্ব যখন মহামারী করোনায় আক্রান্ত, তখন আমরা ও চিন্তিত আমাদের দেশ ও জাতি নিয়ে। আমাদের দেশে  ও হাজার হাজার করোনা রোগী শনাক্ত হয়েছে, কয়েক শতাধিক মানুষের মৃত্যুতে  জাতি শোকাহত। আমরা নাগরিক হিসেবে কতটুকু সরকার ঘোষিত স্বাস্হ্য বিধি মেনে চলছি, জনগনকে বুঝাতে হবে ।সকল স্বাস্হ্যবিধি মেনে চলা ও অসহায় দুস্হ দের পাশে দাঁড়ানোর আহবান জানান। এ সময় উপস্হিত ছিলেন ওয়ার্ড আ,লীগের সভাপতি-- লুৎফর রহমান, ইলিয়াস আলী, আমিনুল ইসলাম ফুরুই,ডা. রবিউল হক, শওকত আলী, লিয়াকত আলী, নাসির উদ্দীন, সহিদুল ইসলাম সর্দার,আব্দুস সবুর বিশ্বাস, ওয়ার্ড আ,লীগের সেক্রেটারী- শওকত আলী, রেজাউল করিম মিন্টু,  সিরাজুল ইসলাম, রবিউল ইসলাম, ফকির শেখ, আব্দুস সালাম  আশরাফ আলী, সাঈদুর রহমান সাঈদ, আব্দস সালাম প্রমুখ। অনুষ্ঠানটি সার্বিক পরিচালনা করেন ইউপি সচিব মহিউদ্দিন।


Tuesday, May 26, 2020

দামুড়হুদার কার্পাসডাঙ্গা পুলিশের অভিযানে গাঁজাসহ খাসকরার খোকন আটক


নিজস্ব প্রতিবেদক :  দামুড়হুদা উপজেলার কার্পাসডাঙ্গা ফাঁড়ি পুলিশের মাদকবিরোধী অভিযানে খাসকরার খোকন (৩০) গাঁজাসহ আটক হয়েছে। পুলিশসুত্রে জানাগেছে, আজ মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৯ টার দিকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে এসআই মেজবাহুর রহমান ও এএসআই রওশন আলীর নেতৃত্বে মাদকবিরোধী অভিযান চালিয়ে উপজেলার মুক্তারপুর লাবনি ইট ভাটার কাছে থেকে খোকনকে আটক করে পুলিশ সদস্যরা। এসময় খোকনের কাছে সাড়ে ৩শত গ্রাম গাঁজাসহ আটক করে পুলিশ। খোকন চুয়াডাঙ্গা জেলার আলমডাঙ্গা উপজেলার খাসকরা ইউনিয়নের তিয়রবিলা গ্রামের তারাচাঁদের ছেলে। কার্পাসডাঙ্গা ফাঁড়ি এসআই মেসবাহুর রহমান জানান, আজ সকালে খবর পেয়ে তাকে মুক্তারপুর রাস্তায় থেকে গাঁজাসহ তাকে আটক করি। খোকন মাদকের একাধিক মামলার আসামী। দামুড়হুদা মডেল থানায় আসামীকে সোপর্দ করা হবে।