Tuesday, February 11, 2020

বাংলাদেশ চ্যাম্পিয়ন হওয়ায় খুশি হয়নি শোয়েব আক্তার

অনূর্ধ্ব-১৯ বিশ্বকাপে ভারতকে হারিয়ে প্রথমবারের মতো কোন বিশ্বকাপ জয় করার গৌরব অর্জন করেছে বাংলাদেশ। মাঠে দুর্দান্ত ক্রিকেট খেলেছেন আকবর আলী-রাকিবুল হাসানরা। স্বভাবতই, তাদের এ সাফল্যে উদ্বেলিত গোটা জাতি।

বাংলাদেশের এমন জয়ে যুবাদের প্রশংসা করেছে বিশ্বের কিংবদন্তি তারকারা। কিন্তু সবার থেকে ব্যতিক্রম কাজটিই করলেন পাকিস্তানের শোয়েব আখতার।

অনূর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপের ফাইনালের পরের দিন তার নিজের ইউটিউব চ্যানেলে শোয়েব একটি ভিডিও আপলোড করেন অনূর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপ ও বাংলাদেশ পাকিস্তান সিরিজ নিয়ে আলোচনা করার জন্য।

ভিডিওর শুরুতে বেশ বিমর্ষ কন্ঠেই বলেন, ‘আজ অনূর্ধ্ব ১৯ বিশ্বকাপ নিয়ে আলোচনা করবো। বাংলাদেশ ফাইনালে জিতেছে, ভারত হেরে গেছে’। তার আওয়াজে যেনো সদ্য নিজের রাজ্য হারানো এক রাজার বেদনা ফুটে উঠেছিলো ভারত হেরে গিয়েছে এই কথাটি বলতে গিয়ে।

শোয়েব বলেন, ‘ক্রিকেটের ভবিষ্যৎ এই অনূর্ধ্ব ১৯ দলের তারকারাই। পাকিস্তানের রোহেল, হায়দার, আমির, হুরেইরা এরা ভালো খেলোয়াড়। অপরদিকে ভারতের যশস্বী জসওয়াল, বিশ্নোই, কার্তিক ত্যাগি, সুশান্ত এরা খুব ভালো খেলোয়াড়। এইসব তরুনরাই ক্রিকেটকে এগিয়ে নিয়ে যাবে। বিশ্বের সেরা অনূর্ধ্ব ১৯ খেলোয়াড়রা ছিলো এই আসরে। ভারতের যশস্বী কি অসাধারণ ক্রিকেটই না খেললো।’

পুরো ভিডিও জুড়ে যেই সময়টুকু অনূর্ধ্ব ১৯ এর কথা বলেছেন পুরো সময়ই শোয়েবের মুখে ছিলো ভারতের খেলোয়াড়দের প্রশংসা। বাংলাদেশের খেলোয়াড়দের প্রশংসা তো দূরে থাক, শোয়েব তাদের নামও নেননি।

শোয়েবের কাছে হয়তো বাংলাদেশি ভক্তদের প্রশ্ন রয়েই যাবে! যেই দেশে আপনাকে দেখে ট্রাফিক থেমে যায় সেই দেশের সবচাইতে বড় ক্রিকেটীয় জয়ে তাহলে কেনো একটি বারের জন্যও তাদের অভিনন্দন জানালেন না, অথচ পুরোটা সময় তাদের প্রতিপক্ষের গুনগান করলেন।

তাহলে কি শোয়েব ভিডিও শুধু ভারতের দর্শকদের থেকে আসা টাকার লোভেই বানান? এই ভয়ে বাংলাদেশ নিয়ে একটি শব্দও উচ্চারণ করেননি? এর জবাব হয়তো শোয়েবই দিতে পারবেন।

0 comments: