Sunday, February 2, 2020

পুলি’শের ৩০ মিনিটের আল’টিমেটাম, ৩ মি’নিটেই বিএ’নপির নেতা–কর্মীরা যা কা’ণ্ড করলেন।

হরতালের সমর্থনে আজ রোববার রাজধানীর নয়াপল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে অবস্থানরত দলটির নেতা-কর্মীদের সরে যেতে ৩০ মিনিটের আল,টিমেটাম দিয়েছিল পু,লিশ। পুলিশের দেওয়া আল্টি,মেটামের মাত্র তিন মিনি,টের মধ্যেই তাঁরা রাস্তা ছেড়ে কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে চলে যান।গতকাল শ,নিবার অনুষ্ঠিত ঢাকার দুই সিটি নির্বা,চনের


ফল প্রত্যা,খ্যান করে আজ রাজধানী ঢাকায় সকাল-সন্ধ্যা হ,রতাল ডাকে বিএনপি। গতকাল সন্ধ্যায় নয়া,পল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলন করে দলের মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আল,মগীর হরতালের এই কর্মসূচি ঘোষণা করেন।হর,তালের সমর্থনে আজ ভোরের দিকে বিএ,নপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে অবস্থান নেন


দলটির নেতা-কর্মীরা।বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের মূল ফটকের সামনে দলটির জ্যেষ্ঠ যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভীসহ ১০ থেকে ১৫ জন নেতা-কর্মীদের দেখা যায়। তাঁরা হর,তালের পক্ষে এবং নির্বাচনী অনি,য়মের বি,রুদ্ধে নানা স্লোগান দিতে থাকেন। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে সেখানে বিএনপির নেতা-কর্মীদের সংখ্যা বাড়ে।সকাল নয়টার পর

মির্জা ফখরুল সেখানে এসে কিছুক্ষণ বসে কার্যালয়ের ভেতরে চলে যান। তিনি এখনো কার্যালয়ের ভেতরে অবস্থান করছেন।বেলা ১১টার দিকে হরতালের সমর্থনে এই কর্মসূচিতে অংশ নেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে বিএনপির পরাজিত প্রার্থী ইশরাক হোসেন। এই কর্মসূচিতে উত্তর সিটি করপোরেশন নির্বাচনে মেয়র পদে বিএনপির


পরাজিত প্রার্থী তাবিথ আউয়ালের অংশ নেওয়ার কথা থাকলেও তিনি আসেননি।প্রত্যক্ষদর্শী ব্যক্তিরা জানান, বেলা ১১টা ৫০ মিনিটের দিকে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যা,লয়ের সামনে অবস্থানরত রুহুল কবির রিজভীর সঙ্গে কথা বলেন পুলি,শের মতিঝিল জোনের সহকারী কমিশনার জাহিদুল ইসলাম।পুলি,শের এই কর্মকর্তা রুহুল কবির রিজভীকে আধঘণ্টার মধ্যে

রাস্তা ছেড়ে দেওয়ার জন্য সময় বেঁধে (আলটিমেটাম) দেন। পুলি,শের আলটিমেটামের পর ঘটনাস্থলে থাকা বিএনপির নেতা-কর্মীদের মধ্যে কিছুটা উত্তে,জনা ছড়িয়ে পড়ে।বি,ক্ষুব্ধ নেতা-কর্মীদের থামা,নোর চেষ্টা করেন ইশরাক হোসেন। পরে তিন মিনিটের মধ্যে নয়াপ,ল্টনে বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যা,লয়ের সামনে থেকে চলে যান দলটির নেতা-কর্মীরা।কেন্দ্রীয়

কার্যালয়ের সামনে থেকে সরে যাওয়ার আগে রুহুল কবির রিজভী বলেন, মধ্যা,হ্নভোজ ও নামাজের জন্য তাঁরা আপাতত কর্ম,সূচিতে বিরতি দিচ্ছেন। পরে তাঁরা আবার কেন্দ্রীয় কার্যা,লয়ের সামনে অবস্থান নিয়ে বি,ক্ষোভ করবেন।হরতা,লের সমর্থনে বিএনপির এই কর্মসূচিতে দলটির যুগ্ম মহাসচিব সৈয়দ মোয়াজ্জেম হোসেন আলাল, হাবিব-উন-নবী খান সোহেল,

খায়রুল কবির খোকন, যুবদলের সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকু, স্বেচ্ছাসেবক দলের সভাপতি শফিউল বারী বাবু প্রমুখ অংশ নেন।দলের শীর্ষ নেতাদের মধ্যে মহাসচিব মির্জা ফখরুল দু,ই মিনিটের জন্য সেখানে অবস্থান করেছিলেন। এ ছাড়া দলটির জ্যেষ্ঠ নেতাদের মধ্যে অন্য কাউকে সেখানে আর দেখা যায়নি।


0 comments: