Thursday, May 7, 2020

সাপ্তাহিক সরকারি ছুটি নিয়ে ভাবার সময় এসেছে : নাসিম

করোনায় প্রবাবে বিপর্যস্ত সমগ্র বিশ্ব। দিন দিন সংকট আরো তীব্র হচ্ছে। ইউরোপ-আমেরিকার মতো উন্নত দেশগুলোও এ সংকট মোকাবিলায় হিমশিম খেতে হচ্ছে। বাংলাদেশের মতো উন্নয়নশীল রাষ্ট্রগুলোকে অনেক কষ্ট করতে হবে এই চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায়। আর এতে সরকারি ছুটির বিষয়টিও সামনে আসতে পারে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মোহাম্মদ নাসিম।
এ চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় করণীয় প্রসঙ্গে বিশিষ্টজনের মতামত নেয়া হচ্ছে বাংলাদেশের অন্যতম অনলাইন নিউজ পোর্টাল জাগো নিউজের পক্ষ থেকে। এরই ধারাবাহিকতায় মতামত ব্যক্ত করেন সাবেক মন্ত্রী মোহাম্মদ নাসিম। যেখানে সরকারি ছুটির বিষয়টিও গুরুত্ব পায়।
তিনি বলেন, করোনাভাইরাসের প্রভাবে অর্থনৈতিক বিশাল সমস্যার সম্মোখিন পুরো পৃথিবী। অর্থনৈতিক চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় সরকারকে অনেক কিছুই ভাবতে হচ্ছে। এর মধ্যে সাপ্তাহিক ছুটিসহ সরকারি অন্যান্য ছুটির ব্যাপারে ভাবনার সময় এসেছে।
তিনি বলেন, পরিবর্তিত বিশ্বে অনেক কিছুই আমরা দেখতে পাবো, যা হয়তো ধারণার বাইরে। বিশেষ করে অর্থনৈতিক চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় অনেক নতুন সিদ্ধান্ত আসবে সামনের দিনে। সময়ের এ চ্যালেঞ্জ নিয়ে আমাদেরকেও ভাবতে হবে। স্বাস্থ্য, শিক্ষা, উন্নয়ন নিয়েও নতুন করে ভাবতে হবে।
নাসিম বলেন, অপ্রত্যাশিত হলেও বিশাল ছুটির ফাঁদে বাংলাদেশ। সব স্থবির। মানুষের জীবন বাঁচাতেই সাধারণ ছুটি ঘোষণা করা হয়েছে। কিন্ত দীর্ঘ এ ছুটির কারণে অর্থনীতি যে হুমকির মুখে পড়েছে তা বলার অপেক্ষা রাখে না।
সাবেক এ মন্ত্রী বলেন, নাগরিকের জীবন ধারণের দিক বিবেচনা করেই সাপ্তাহিক ছুটি দুই দিন করা হয়েছিল। অন্যদিকে আন্তর্জাতিকভাবে সাপ্তাহিক ছুটি রোববার। সঙ্গত কারণে কোনো না কোনোভাবে তিনদিনের ছুটির কবলে পড়তে হয় আমাদের। আবার করোনা পরিস্থিতিতে অনির্ধারিত ছুটির মধ্যে রয়েছি আমরা। আরও কতদিন এমন অবস্থা থাকবে তা, বলা মুশকিল।
সুতরাং করোনার প্রভাব কেটে গেলে সরকারি ছুটি কমানো নিয়ে অবশ্যই ভাবতে হবে। দেশের স্বার্থে, উন্নয়নের স্বার্থে আমাদেরকে ত্যাগ স্বীকার করতেই হবে। অন্তত একটি সময়সীমা ধরে ছুটির ব্যাপারে ভেবে চলমান ক্ষতি পুষিয়ে নিতে হবে বলে মনে করেন সাবেক এই মন্ত্রী।
সৌজন্যে: জাগো নিউজ

0 comments: